অপহরণের ১৮ ঘণ্টার মধ্যেই অপহৃত শিশু উদ্ধার : আটক ১

0
64

পছন্দের পাত্রীকে বিয়ে না দেয়ায় পাত্রীর ১৩ মাস বয়সী ছোট বোনকে অপহরণ করেছিল মিস্টার নামের এক যুবক। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি তার। অপহরণের ১৮ ঘণ্টার মধ্যেই পুলিশের কাছে ধরা পড়েছে সে। একই সঙ্গে উদ্ধার হয়েছে অপহৃত শিশুটিও। ঘটনাটি ঘটেছে নেত্রকোনা সদর উপজেলার মঈনপুর গ্রামে। আটক অপহরণকারী সাজ্জাদুর রহমান মিস্টার (২৮) সদর উপজেলার তারাকুরি গ্রামের সোনাফর আলীর ছেলে। অপহৃতা শিশুটির নাম মারিয়া। সে মঈনপুর গ্রামের জুয়েল মিয়া ও তুহিনা আক্তারের মেয়ে।

জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের পরিদর্শক জানান, সাজ্জাদুর রহমান মিস্টার সম্প্রতি মঈনপুর গ্রামের জুয়েল মিয়ার বড় মেয়ে স্থানীয় মাদ্রাসার অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী জাকিয়াকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। কিন্তু মেয়ে পূর্ণবয়স্ক না হওয়ায় অভিভাবকরা বিয়েতে রাজি হয়নি। এর জের হিসেবে মিস্টার গত শনিবার ভোরে জুয়েল মিয়ার ঘর থেকে তার ১৩ মাস বয়সী ছোট মেয়ে মারিয়াকে অপহরণ করে। পরে জুয়েল মিয়াকে মুঠোফোনে জানায়, বড় মেয়ে জাকিয়াকে তার (মিস্টারের) সঙ্গে বিয়ে দিলে অপহৃতা ছোট মেয়েকে ফিরিয়ে দেবে। বিষয়টি তৎক্ষণাৎ পুলিশকে জানানো হলে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ ও নেত্রকোনা মডেল থানা পুলিশ যৌথভাবে অভিযানে নামে। প্রযুক্তির সহায়তায় সারাদিন বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালানো হয়।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here