আসাদগেটে শুরু হলো রোবট রেস্টুরেন্টের যাত্রা

0
107

দেশে প্রথম যাত্রা শুরু হলো রোবট রেস্টুরেন্টের। এ রেস্টুরেন্টে মানুষ নয়, শুধু রোবট কাস্টমারকে খাবার সরবরাহ করবে। মিরপুর রোডে আসাদগেটের সন্নিকটে প্রধান সড়কের ফ্যামিলি ওয়ার্ল্ড টাওয়ারের দ্বিতীয় তলায় এ রেস্টুরেন্টের অবস্থান। গতকাল বুধবার রেস্টুরেন্টটির উদ্বোধন করা হয়।

এ উপলক্ষে নিজস্ব অডিটরিয়ামে রেস্টুরেন্ট কর্তৃপক্ষ ও রোবট প্রস্তুতকারী সংস্থা এইচ জেড এক্স ইলেকট্রনিক টেকনোলজি কোম্পানি যৌথভাবে  এক সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করে।


আয়োজকরা জানান, বাংলাদেশ ও চীন যৌথভাবে এ রেস্টুরেন্টটি পরিচালনা করবে। শিশুদের বিনোদন ও খাবারের বিষয়টি চিন্তা করেই এ ধরনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। রেস্টুরেন্টটির পরিচালক রাহিন রাইয়ান নবী বলেন, রোবট কখনোই ক্লান্ত হবে না। তাই রোবট কাস্টমারকে আরো ভালো সেবা দিতে পারবে। যা সকল বয়সের মানুষের জন্য অত্যন্ত রোমাঞ্চকর পরিবেশও তৈরি করবে। বিশেষ করে শিশুরা সবচেয়ে বেশি রোমাঞ্চিত হবে।

তিনি বলেন, খাবারের দাম সাধ্যের মধ্যেই রাখা হবে যাতে সকল শ্রেণির মানুষই এই সেবা নিতে পারেন। শিশুদের জন্য বিশেষ কিছু খাবার থাকছে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সবাই রোবটের কার্যক্রম প্রত্যক্ষ করেন। এটি ছিল একটি সম্পূর্ণ নতুন অভিজ্ঞতা। রেস্টুরেন্টটিতে প্রাথমিকভাবে দুইটি রোবট কাজ করবে।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত এইচ জেড এক্স ইলেকট্রনিক টেকনোলজি কোম্পানির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ম্যাক্স সোয়াজ বাংলাদেশে রোবট ডিজিটালাইজেশনের জন্য সহযোগিতা করার জন্য সব সময় প্রস্তুত রয়েছে বলে জানিয়েছেন।

প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান আনোয়ারুন নবী মজুমদারের দুই সন্তান তাসিন রওনাক নবী ও রাহিন রাইয়ান নবী বিদেশে উচ্চ শিক্ষার জন্য অধ্যয়নরত অবস্থায় চীন সফরে যান। সেখানে তারা চীনের রোবট দ্বারা খাবার সরবরাহ পদ্ধতি দেখে আকৃষ্ট হন। তারা তখন সংশ্লিষ্ট রোবট কোম্পানির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ করে রোবট রেস্টুরেন্ট চালুর বিষয়ে আলোচনা করেন।

সর্বসাধারণের সুবিধার্থে প্রাথমিক অবস্থায় আগামী এক মাসের জন্য শিশুদের ‘কিডমিল’ এবং দেশীয় খাবারের সেট ফুড পরিবেশন করা হবে। যার মূল্য সর্বোচ্চ ৫শ টাকার বেশি হবে না।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here