কিম জং উনকে অপমান করায় ট্রাম্পের মৃত্যুদণ্ড হওয়া উচিত : উ. কোরিয়া

0
125
উ. কোরিয়ার নেতা কিম জং উনকে অপমান করায় ট্রাম্পের মৃত্যুদণ্ড হওয়া উচিত বলে জানিয়েছে দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম। এছাড়া আন্তঃকোরীয় সীমান্ত সফর বাতিল করায় ট্রাম্পকে কাপুরুষ অভিহিত করা হয়।
উ. কোরিয়ার কমিউনিস্ট পার্টির মুখপাত্র রডং সিনমুনের সম্পাদকীয়তে ট্রাম্পের দ. কোরিয়া সফরের সময় দেয়া ভাষণের সমালোচনা করা হয়। সেই ভাষণে উ. কোরিয়ার সরকারকে ‘নির্দয় একনায়কতন্ত্র’ হিসেবে অভিহিত করেন। সম্পাদকীয়তে বলা হয়, তার যে অপরাধ কখনো ক্ষমা যাবে না সেটা হচ্ছে সে আমাদের সর্বোচ্চ নেতৃত্বকে ক্রমাগত অপমান করার ধৃষ্টতা দেখিয়েছে। তার এটা জানা দরকার যে সে কোরিয়ার মানুষদের কাছে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত কুৎসিত অপরাধী ছাড়া কিছু না।
ভিয়েতনাম সফরের সময় উ. কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে ট্রাম্পকে ‘ভীমরতিগ্রস্ত বুড়ো’ অভিহিত করা হয়। জবাবে টুইটারে করা পোস্টে ট্রাম্প বলেন, কেন কিম জং উন আমাকে বুড়ো বলে অপমান করল? আমি কী কখনো তাকে মোটা ও বেটে বলেছি?
উ কোরিয়ার কিম ‘রাজত্বে’ কিমরা প্রায় দেবতার পর্যায়ে অধিষ্ঠিত। সেখানে শীর্ষ নেতৃত্বকে অপমানসূচক কিছু বা ব্যঙ্গ করা হলে সেখানে কর্তৃপক্ষের খড়গ নেমে আসে। দুই কোরিয়ার সীমান্ত এলাকা ডি মিলিটারাইজড জোনে সাধারণত দ. কোরিয়া সফররত কর্মকর্তারা গিয়ে থাকেন। তবে দ. কোরিয়া সফরে গিয়ে ট্রাম্প সেটা করেননি। হেলিকপ্টারে গিয়ে সেখানে বাজে আবহাওয়ার জন্য ফিরে আসেন। তবে সম্পাদকীয়তে বলা হয়, এটা খারাপ আবহাওয়ার জন্য নয়। আমাদের সেনাবাহিনীর সদস্যদের অগ্নিদৃষ্টির সামনে দাঁড়ানোর সাহস তার নেই।
তথ্যসূত্র : গার্ডিয়ান।
image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here