দুই জলদস্যু বাহিনীর ২০ সদস্যের আত্মসমর্পণ

0
104
সুন্দরবনে দুই জলদস্যু বাহিনীর ২০ সদস্য গতকাল বুধবার পিরোজপুরে আত্মসমর্পণ করেছেন। এসময় তারা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে বিপুল পরিমাণ অস্ত্রশস্ত্র জমা দেন।
র‌্যাব-৮ এর উদ্যোগে জেলা স্টেডিয়ামে মানজু বাহিনীর ১১ জন এবং মজিদ বাহিনীর ৯ সদস্য ৩৩টি দেশি-বিদেশি আগ্নেয়াস্ত্র ও এক হাজার ৩২৯ রাউন্ড গোলাবারুদ মন্ত্রীর হাতে তুলে দেন। এ সময় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মো. আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন- বিশ্ব ঐতিহ্য, পর্যটন ও মত্স্য সম্পদ আহরণের স্বার্থে আমাদের অহঙ্কার সুন্দরবনকে রক্ষার জন্য জলদস্যু দমন আমরা যে ধারাবাহিকভাবে অব্যাহত রেখেছি তারই অংশ    হিসেবে আরো দু’টি ডাকাত দল স্বেচ্ছায় আত্মসমর্পণ করল। জলদস্যু দমনে এ পর্যন্ত র‌্যাব যে কার্যক্রম চালিয়ে আসছে তাতে গত ১১ মাসে ১২টি বাহিনীর ১৩২ জলদস্যু ২৪৯টি অস্ত্র ও ১২ হাজার ৫৯২ রাউন্ড গোলাবারুদসহ আত্মসমর্পণ করে। আজ আরও ২০ জন আত্মসমর্পণের মধ্যদিয়ে এই সংখ্যা ১৫২ তে দাঁড়িয়েছে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এখনো আরও তিনটি জলদস্যু বাহিনী সুন্দরবন ও বঙ্গোপসাগরে তাদের তত্পরতা চালাচ্ছে। আমাদের আহ্বান এই বাহিনীগুলো অবিলম্বে আত্মসমর্পণ করে তারা স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসবে। তা নাহলে তাদের জন্য যে ভয়ঙ্কর ও অন্ধকারাচ্ছন্ন জীবন রয়েছে তার পরিণাম খুবই খারাপ। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে আত্মসমর্পণ করা জলদস্যুদের পুনর্বাসন করা হয়েছে।
র‌্যাব-৮ এর সিও উইং কমান্ডার হাসান ইমন আল রাজির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে এ কে এম এ আউয়াল এমপি, র্যাবের মহাপরিচালক মো. বেনজীর আহমেদ, জেলা প্রশাসক মো. খায়রুল আলম সেখ, পুলিশ সুপার মো. ওয়ালিদ হোসেন, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন মহারাজ, পৌর মেয়র মো. হাবিবুর রহমান মালেক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here