নৌকা ডুবে এক নারী শ্রমিক নিখোঁজ হয়েছেন।

0
88
নৌকা ডুবে এক নারী শ্রমিক নিখোঁজ হয়েছেন।
সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলায় রক্তি নদীতে নৌকা ডুবে এক নারী শ্রমিক নিখোঁজ হয়েছেন। তার সন্ধান অভিযান অব্যাহত রয়েছে।
বুধবার রাত সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার বালিজুড়ি বাজারের কাছে নৌ-দুর্ঘটনায় নারী শ্রমিক হ্যাপি আক্তার (৩০) নিখোঁজ হন। তিনি পার্শ্ববর্তী বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের ফুলবরি গ্রামের মহব্বত আলীর স্ত্রী। বৃহস্পতিবার দুপুরে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পূর্ণেন্দু দেব ও ফতেপুর ইউপি চেয়ারম্যান রনজিৎ চৌধুরী রাজন।
এই নৌ-দুর্ঘটনায় আরো ১০ শ্রমিক আহত হন। গুরুতর আহতদের মধ্যে সৈয়দ আলী (৩৫) ও জুয়েল মিয়াকে (৩০) সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। অন্যরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিচ্ছেন।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বুধবার দিনভর যাদুকাটা নদীতে বালু-পাথর উত্তোলনের কাজ শেষে ৩০ জন শ্রমিক নৌকাযোগে ফুলবরি গ্রামে ফিরছিলেন। পথে পেছন দিক থেকে আসা আল্লাহ ভরসা পরিবহন নামের একটি বাল্কহেড শ্রমিকদের পরিবহন করা নৌকাটিকে ধাক্কা দিলে সেটি ডুবে যায়।
এ সময় শ্রমিকরা সাঁতরিয়ে তীরে উঠলেও নিখোঁজ হন হ্যাপি আক্তার। দুর্ঘটনার পর চালক ও সহকারীরা বাল্কহেড ফেলে পালিয়ে যায়।
তাহিরপুর থানার ওসি নন্দন কান্তি ধর জানান, স্থানীয়দের সহায়তায় রক্তি নদীতে উদ্ধার তৎপরতা চলছে। সিলেট থেকে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরিরা অনুসন্ধান কাজ শুরু করেছেন।
image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here