পরকীয়ায় জড়িত স্বামীকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করেন স্ত্রী।

0
59
পরকীয়ায় জড়িত স্বামীকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করেন স্ত্রী।

কৃষিকাজ করেন দুই সন্তানের জনক উপেন্দ্রনাথ হাওলাদার (৪০)। দুই বছর ধরে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়েন। বিষয়টি জানতে পেরে স্বামীকে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করেন স্ত্রী। পারেননি। তাই বেছে নিলেন অন্য পথ। স্বামীর পুরুষাঙ্গই কেটে ফেললেন। গতকাল শুক্রবার নওগাঁর বদলগাছি উপজেলায় কৃষ্টপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে বলে স্থানীয় লোকজন বলছেন। এলাকাবাসীর দেওয়া তথ্যের বরাতে পুলিশও একই কথা বলছে।

থানার পুলিশ ও এলাকাবাসীর ভাষ্য, উপেন্দ্রনাথ হাওলাদারের অনেক দিন ধরে একাধিক নারীর সঙ্গে পরকীয়া চলছিল। তাঁর স্ত্রী এসব ঘটনা জানতে পারেন। তিনি উপেন্দ্রনাথকে পরকীয়া থেকে ফিরিয়ে আনতে চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। গতকাল রাতে খাওয়া শেষে উপেন্দ্রনাথ হাওলাদার ঘুমিয়ে পড়লে প্রতিশোধ নেন তিনি। রাত আনুমানিক ১২টার দিকে ব্লেড দিয়ে উপেন্দ্রনাথের পুরুষাঙ্গ কেটে দেন। এ সময় উপেন্দ্রনাথের চিৎকারে প্রতিবেশীরা ছুটে আসেন। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। অবস্থার উন্নতি না হলে পরে উপেন্দ্রনাথকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বদলগাছি থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শাহিনুর ইসলাম বলেন, উপেন্দ্রনাথের স্ত্রীকে তাঁর বাড়ি থেকে আটক করে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। পরকীয়া থেকে ফেরাতে ব্যর্থ হওয়ায় স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছেন বলে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পুলিশকে জানিয়েছেন তিনি। এ ঘটনায় আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here