বাংলাদেশ ছাড়ছে না শেভরন

0
69

বাংলাদেশ ছাড়ছে না মার্কিন বহুজাতিক তেল-গ্যাস কোম্পানি শেভরন। বছরখানেক ধরে আলোচনায় থেকে অবশেষে কোম্পানিটি বাংলাদেশে অবস্থিত তার গ্যাসক্ষেত্র বিক্রির  সিদ্ধান্ত থেকে সরে এসেছে।

বৃহস্পতিবার বিদ্যুৎ ভবনে সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্রের চুক্তি সই অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ সংবাদ মাধ্যমকে জানান, শেভরন বাংলাদেশ ছাড়ছে না। তারা বিবিয়ানায় আরও ৪০ কোটি ডলার বিনিয়োগ করবে। এই বিনিয়োগ করা হবে কম্প্রেসর বসানোর জন্য।

সূত্র জানায়,  গত বছর হঠাৎ কোম্পানিটি তার তিন গ্যাসক্ষেত্র বিবিয়ানা, মেৌলভীবাজার ও জালালাবাদ গ্যাসক্ষেত্র বিক্রির ঘোষণা দেয়।

এ বিষয়ে তারা হিমালয়া নামে চীনের একটি কোম্পানির সঙ্গে চুক্তিও করে। চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের অধীনস্থ এই কোম্পানির সঙ্গে চুক্তির বিষয়ে শেভরন বাংলাদেশ সরকারের অনুমতি নেয়নি। এছাড়া সরকার নিজেও গ্যাসক্ষেত্র কেনার বিষয়ে আগ্রহী ছিল।

এজন্য মার্কিন কোম্পানি উড ম্যাকেঞ্জিকে দিয়ে শেভরনের সম্পদের জরিপও করে। কিন্তু শেভরন পেট্রোবাংলার অনুমতি ছাড়া চীনা কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করায় তাদের সম্পদ হস্তান্তরের বিষয়টি সরকার আটকে দেয়।

এরপর শেভরন কর্তৃপক্ষ সরকারের বিভিন্ন্ন পর্যায়ে দেন-দরবার শুরু করে। ৮ অক্টোবর কোম্পানিটির একটি ঊর্ধ্বতন প্রতিনিধিদল পেট্রোবাংলার কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সাক্ষাত্ করে।

এ সময় তারা কম্প্রেসর স্থাপন ও দাম বাড়ানোর প্রস্তাব নতুন করে উত্থাপন করে। শেভরন বিবিয়ানায় ৪০ কোটি ডলার বিনিয়োগ করে কম্প্রেসর স্থাপন ও প্রতি ইউনিট (এক হাজার ঘনফুট) গ্যাসের দাম দুই দশমিক ৭৬ ডলার থেকে বাড়িয়ে তিন ডলার করার প্রস্তাব দেয়।

এ বিষয়ে জানতে যোগাযোগ করা হলে শেভরনের ব্যবস্থাপক শেখ জাহিদুর রহমান ইমেইল বার্তায় জানান, শেভরন নিয়মিতভাবে জাতীয়, আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে চলে।

তবে তাদের দীর্ঘমেয়াদি নীতিমালা অনুসারে এ বিষয়ে সরকারি কর্মকর্তাদের সঙ্গে কোনো বৈঠক হয়নি।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here