মাদারীপুরে কবিরাজের বিরুদ্ধে এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ

0
81

মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলায় এক কবিরাজের বিরুদ্ধে চিকিৎসা নিতে আসা এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার দুপুরের এ ঘটনায় উপজেলার টেকেরহাট বন্দরের মিল্কভিটা রোডে মোহাম্মাদিয়া দাওয়াখানার কবিরাজ হাকীম মো. মোয়াজ্জেম হোসেনের (৫০) পুলিশ আটক করেছে।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, দুপুরে রাজৈরের পশ্চিম কোদালিয়া বাজিতপুর থেকে নাকের পলিপাস চিকিৎসার জন্য এক মা তার নবম শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়েকে নিয়ে টেকেরহাট মোয়াজ্জেম হোসেনের কাছে নিয়ে আসেন। এ সময় কবিরাজ ওই মেয়েকে দেখে মেয়ের মাকে বলেন, আপনার মেয়েকে জাদু করে নষ্ট করা হয়েছে। তাই আপনার মেয়েকে ভালো করার জন্য একই উপজেলার একটি মসজিদের মাটি ও গোলাপ জল আনতে হবে। সেই মাটি ও গোলাপজল দিয়ে চিকিৎসা করা হবে।

পুলিশ জানায়, কবিরাজের কথামত ছাত্রীর মা মেয়েকে বসিয়ে রেখে মাটি ও গোলাপজল আনতে সেখানে যান। এই সুযোগে কবিরাজ মোয়াজ্জেম ওই ছাত্রীকে জাপটে ধরে এবং এক পর্যায়ে তার অশালীন আচরণ এবং শরীরের নানা স্থানে হাত দেয়। পরে এই ঘটনা কাউকে বলতে নিষেধ করা হয়।

মাটি ও গোলাপজল নিয়ে মা ফিরে এলে ওই ছাত্রী মাকে বিষয়টি জানায়। এ নিয়ে কবিরাজের সাথে বাক-বিতণ্ডা হলে স্থানীয়দের মধ্যে জানাজানি হয়। পরে স্থানীয় লোকজন কবিরাজকে মারধর করে পুলিশে সোপর্দ করে।

রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) সিরাজুল হক সরদার বলেন, টেকেরহাট বন্দরে মোহাম্মাদিয়া দাওয়াখানার কবিরাজ হাকীম মো. মোয়াজ্জেম হোসেনকে যৌন হয়রানির অভিযোগ আটক করা হয়েছে।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here