মদন উপজেলার তিয়শ্রী গ্রামের উত্তর পাড়ায় এক কিশোরী গণধর্ষনের শিকার

0
23
মদন উপজেলার তিয়শ্রী গ্রামের উত্তর পাড়ায় এক কিশোরী গণধর্ষনের শিকার
জেলার মদন উপজেলার তিয়শ্রী ইউনিয়নের তিয়শ্রী গ্রামের উত্তর পাড়ায় এক কিশোরী গণধর্ষনের শিকার হয়ে অন্তঃসত্ত্বা হলে এলাকার একটি প্রভাবশালী মহল উক্ত ঘটনা ধামাচাপা দেওয়ার পায়তারা করছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
এলাকাবাসী ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, সাইকুল ইসলামের মেয়ে মুক্তা মনি(১৪) কে আনুমানিক ছয় মাস আগে তিয়শ্রী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনে থেকে মুখে কাপড় চাপা দিয়ে একই গ্রামের চার যুবক পাশের হাওরের নির্জন স্থানে নিয়ে জোর পূর্বক পালাক্রমে গণধর্ষন করে তাকে ভয় দেখিয়ে বাড়ির পাশে রেখে চলে যায়। মেয়েটি সহজ-সরল থাকায় ঘটনাটি কারো কাছে প্রকাশ না করে নীরব হয়ে যায়। এর মধ্যে সম্প্রতি মেয়েটির অন্তঃসত্ত্বার লক্ষণ দেখে তার মা এ ঘটনা কে ঘটিয়েছে জানতে চাইলে তিয়শ্রী গ্রামের জাহাঙ্গীর, জসিম, শাকিবুল ও সোহাগের নাম প্রকাশ করে মেয়েটি। মেয়ের মা সংশ্লিষ্ট ইউপি সদস্য আহাদ মিয়ার কাছে বিচার প্রার্থী হলে তিনি নানা তালবাহানায় সময় অতিবাহিত করতে থাকেন। ফলে পরিবারটি এ ঘটনার ন্যায় বিচার পাবে কি না এ নিয়ে সংশয়ে ভুগছে।
মঙ্গলবার সরজমিনে গেলে মেয়ের মা সহুরা আক্তার জানান, আমার সহজ-সরল মেয়েকে ভয় দেখিয়ে গ্রামের চার লম্পট পালাক্রমে একাধিকবার ধর্ষণ করায় আমার মেয়ে বর্তমানে ছয় মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েছে। বিষয়টি ইউপি সদস্য আহাদ মিয়াসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের কাছে বিচার দাবি করলে তারা ন্যায় বিচার করবে বলে আমাকে অশ্বস্থ করলেও বিষয়টির সুরাহা করছে না। তাদের কারণে আমি আইনের আশ্রয় নিতে পারছি না। এর মধ্যে থানার একজন ডিএসবি এলাকায় এসে খোজ খবর নিয়ে গেছে।
ইউপি সদস্য আহাদ মিয়া উক্ত ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, গ্রামের গণ্যমান্য ব্যক্তি বর্গের সাথে আলোচনা করে অচিরেই এর সুরাহা করা হবে।
তিয়শ্রী গ্রামের মাতাব্বর মারুফ মাষ্টার জানান, গ্রামের ইজ্জত রক্ষার্থে ঘটনাটি স্থানীয় ভাবে মিটমাট করার চেষ্টা করছি।
এ ব্যাপারে মদন থানার ওসি মোঃ শওকত আলী জানান, ঘটনার খবর শুনে অভিভাবক কে তিন দিন আগে থানায় অভিযোগ করতে বলেছি, কিন্তু আজ পর্যন্ত কেউ অভিযোগ করেনি।
image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here