১১ চাল ব্যবসায়ীকে জরিমানা

0
43

ফরিদপুরে চালের বাজারে অভিযান চালিয়ে তিন ব্যবসায়ীকে মোট ৬০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। ওই তিন ব্যবসায়ী অতিরিক্ত ১০৭ মেট্রিক টন চাল মজুত করে রেখেছিলেন।

আজ বুধবার বেলা তিনটা থেকে সন্ধ্যা ছয়টা পর্যন্ত শহরের চকবাজার, শোভারামপুর ও গোয়ালচামট মহল্লার খোদাবক্স রোড এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়। র‌্যাবের সহায়তায় পরিচালিত এ অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের নির্বাহী হাকিম সজল চন্দ্র শীল।

এদিকে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় চালের দোকান ও আড়তের সামনে মূল্যতালিকা না টাঙানোর দায়ে আটজন ব্যবসায়ীকে ৫৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। আজ দুপুরে ভেড়ামারা উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) রাসেল মিয়া ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনে এ জরিমানা করেন।

র‌্যাব-৮ ফরিদপুর ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. রহিস উদ্দিন বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এ অভিযান চালানো হয়। অভিযানকালে খোদাবক্স রোডে নবীন চন্দ্র সাহার গুদাম থেকে ৪০ মেট্রিক টন, একই এলাকার শিবুনাথ সাহার গুদাম থেকে ৬০ মেট্রিক টন ও শোভারামপুর এলাকার কীর্ত্তন সাহার গুদামে থেকে ১০ মেট্রিক টন চাল পাওয়া যায়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে শিবুকে ৩০ হাজার, নবীনকে ২০ হাজার এবং কীর্ত্তনকে ১০ হাজারসহ মোট ৬০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এ ছাড়া গুদামজাত চাল দ্রুত বাজারে ছেড়ে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়।

নির্বাহী হাকিম সজল চন্দ্র শীল বলেন, ওই তিন ব্যবসায়ীর কারও কাছেই লাইসেন্স ছিল না। লাইসেন্স না থাকলে কোনো ব্যক্তি বা ব্যবসায়ী এক টনের বেশি চাল মজুত করতে পারেন না। কিন্তু ওই তিন ব্যবসায়ীর কাছে অতিরিক্ত ১০৭ মেট্রিক টন চাল বেশি পাওয়ায় ১৯৫৬ সালের অত্যাবশ্যকীয় খাদ্যপণ্য আইনে দোষী সাব্যস্ত করে তাঁদের জরিমানা করা হয়। এ ছাড়া গুদামজাত চাল দ্রুত বাজারে ছেড়ে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়।

ভেড়ামারা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) রাসেল মিয়া বলেন, তিনটি দোকানকে ১০ হাজার টাকা করে ৩০ হাজার এবং পাঁচটি দোকানকে পাঁচ হাজার করে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এসব প্রতিষ্ঠানে চাল বিক্রি করার কোনো অনুমোদন নেই। পাশাপাশি তাদের দোকানের সামনে চালের মূল্যতালিকা টাঙানো ছিল না। এ জন্য জরিমানা আদায় করা হয়েছে। এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here