স্পোর্টিংয়ের বিপক্ষে জয় পেলো বার্সেলোনা

0
242

আত্মঘাতী গোলে’ জয় পেলো বার্সেলোনা। স্পোর্টিংয়ের বিপক্ষে বেশ কষ্ট করেই জিতে হয়েছে দলটিকে।

লিওনেল মেসির ফ্রিকিক থেকে লুইস সুয়ারেজের একটি হেড ফেরাতে গিয়ে নিজেদের জালেই বল জড়িয়ে দেন স্পোর্টিংয়ের সেবাস্তিয়ান কোয়াতেস। ১-০ গোল এই জয় দিয়ে চ্যাম্পিয়নস জয়ের ধারা অব্যাহত রাখল বার্সা।

প্রথমার্ধটা ছিল বার্সার জন্য প্রচণ্ড হতাশার। দ্বিতীয়ার্ধে কোয়াতাসের আত্মঘাতী গোলটি দিয়ে মেসির ৫৯৩ তম ম্যাচের উপলক্ষ রাঙাতে হয় ভেলভের্দের শিষ্যদের।

বার্সার জার্সিতে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ খেলা খেলোয়াড়দের তালিকায় মেসি এখন কার্লোস পুয়োলের সঙ্গে যৌথভাবে তৃতীয়। মৌসুমটা এমনিতেই দারুণ আত্মবিশ্বাসের সঙ্গেই শুরু করেছে বার্সেলোনা। এখনো পর্যন্ত যতগুলো খেলা হয়েছে, তাতে বার্সাকে ঠেকানোর কোনো পথ খুঁজে পায়নি প্রতিপক্ষ। প্রথম ৬ ম্যাচ জিতে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদের চেয়ে এগিয়ে আছে ৭ পয়েন্টে।

বলের দখলটা পায়ে রাখলেও প্রথমার্ধে খুব ভালো কোনো সুযোগ তৈরি করতে পারেনি মেসির দল। ২৮ মিনিটে অবশ্য সার্জি রবার্তোর পাস থেকে লুইস সুয়ারেজের শট ঠেকিয়ে দেন স্পোর্টিং গোলকিপার লুই পাত্রিসিও। এর পরপরই সুয়ারেজের ক্রস থেকে মেসির হেড সহজেই ধরে ফেলেন পাত্রিসিও।

৪৯ তম মিনিটে আত্মঘাতী গোলটির জন্য ভাগ্যকে ধন্যবাদ দিতেই পারে বার্সেলোনা। মেসির ফ্রিকিক থেকে বলটি সুয়ারেজের মাথায় লেগে গোলের দিকে যেতেই তাতে পা লাগিয়ে দিলেন কোয়াতেস। গোল হয়ে গেল তাতেই। কোয়াতেস ভাবতেই পারেননি বল এভাবে যে তাঁর পায়ে লেগে যাবে।

৭০ মিনিটে স্পোর্টিং গোলটা পরিশোধ করে দিতেই পারত। কিন্তু সেটি হয়নি বার্সা গোলকিপার টের-স্টেগেনের দৃঢ়তায়। ডি বক্সের মধ্য থেকে ব্রুনো ফার্নান্দেজের দুর্দান্ত শটটি ঠেকিয়ে দেন তিনি। খেলা শেষ হওয়ার অল্পক্ষণ আগে ভালো একটি সুযোগ নষ্ট করেন পাওলিনহো।

image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here