রাস্তায় নিজের ভাস্কর্যের সামনে শোয়ার্জনেগারের ঘুম!

0
43
বিখ্যাত অভিনেতা হলিউড আর্নল্ড শোয়ার্জনেগার। তার ধুন্ধুমার অ্যাকশনে ভরপুর সিনেমাগুলো ভক্তদের মনে এখনো দাগ কেটে আছে। শোয়ার্জনেগার শুধু একজন তারকাই নন তিনি একজন রাজনীতিবিদও বটে। ক্যালিফোর্নিয়া গভর্নর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এককালের গভর্নর ও মেগাস্টার শোয়ার্জনেগারকে ঘুমাতে হবে রাস্তায় সেটা কি কেউ কখনো ভেবেছিল।
নিজের সুবিখ্যাত ব্রোঞ্জ মূর্তির সামনে ঘুমন্ত অবস্থার একটা ছবি শোয়ার্জনেগার তাঁর ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজ থেকে পোস্ট করেছিলেন। ক্যাপশন লিখেন- ‘সময় কীভাবে বদলায়!’ যদিও শোয়র্জনেগার ছবিটা ২০১৬ সালের জানুয়ারিতে পোস্ট করেছিলেন কিন্তু এখনো সেটি ভাইরাল হওয়া বন্ধ হয় নি। শুধুমাত্র শোয়ার্জনেগারের ফেসবুক আইডি থেকেই ছবিটি ৭৪হাজার ৫০৩ বার শেয়ার হয়েছে। সেখান থেকে ছবিটি আরো ছড়িয়ে পড়ছে।
এদিকে শোয়ার্জনেগারের সেই চার শব্দকে বিভিন্ন গণমাধ্যম রংচং চড়িয়ে একটি গল্প লেখা শুরু করে দেয়। বিভিন্ন গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়, শোয়র্জনেগার যখন ক্যালিফোর্নিয়ার গভর্নর ছিলেন তখন তিনি সেখানে একটি হোটেলের উদ্বোধন করেছিলেন। হোটেলের কর্মচারীরা তাকে সম্মানের সাথে প্রতিশ্রুতি দিয়ে বলেছিল, যে কোন সময় শোয়ার্জনেগার এই হোটেলে এলে তাঁর জন্য একটি সংরক্ষিত কক্ষ থাকবে। শুধু তাই নয়, গভর্নরকে সম্মান জানিয়ে হোটেল কর্তৃপক্ষ শোয়ার্জনেগারের একটা ব্রোঞ্জের ভাস্কর্য হোটেলটির সামনে স্থাপন করে। অথচ পরবর্তী সময়ে আর্নল্ড সেই হোটেলে গেলে তাকে হোটেল প্রশাসন থেকে বলা হয় যে, এই মুহূর্তে কোন ঘর খালি নেই তাই আপনাকে আমাদের ফেরাতে হচ্ছে। তিনি তখন একটি স্লিপিং জ্যাকেট এনে তার ভাস্কর্যের নীচে ঘুমিয়ে পড়েন। ততদিনে শোয়ার্জনেগার আর ক্যালিফোর্নিয়ার গভর্নর নন।
কিন্তু গল্পটি যে সত্য নয় সেটাও পরবর্তীতে বেরিয়ে আসে। প্রথমত ৮ ফুট উঁচু ব্রোঞ্জ ভাস্কর্যটি কোন হোটেল নয় বরং ওহাইয়োর গ্রেটার কলম্বাস কনভেনশন সেন্টারের সামনে অবস্থিত। দ্বিতীয়ত, ছবিটি দিয়ে শোয়ার্জনেগার মাত্র চারশব্দ দিয়েই একটি ক্যাপশন দিয়েছিলেন সেখানে কোন গল্পও বলা ছিলনা। তারপরো যারা বিশ্বাস করেনা তাদের জন্য বলা প্রয়োজন শোয়ার্জনেগার পৃথীবির অন্যতম ধনী অভিনেতা যিনি তার দানশীলতার জন্য বিখ্যাত।
image_pdfimage_printPrint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here